উপজেলা ছাত্রলীগ নেতাদের বহিষ্কার আদেশ ভিত্তিহীন

0
1

আরিফুল ইসলাম, রাঙ্গামাটিঃ

গতকাল ২৭শে এপ্রিল রোজ মঙ্গলবার লংগদু উপজেলা ছাত্রলীগের তিন কর্মিকে গঠনতন্ত্রের বহির্ভূত, মনগড়া ও ভিত্তিহীনভাবে বহিষ্কারের প্রতিবাদ করেছেন লংগদু উপজেলা ছাত্রলীগ। অত্র উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক রাশেদ খান রাজু স্বাক্ষরিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিটিতে উল্লেখ করা হয়। যাতে লেখা ছিলো”গত২৫/০৪/২০২১ ইং অদ্যবধি লংগদু উপজেলা ছাত্রলীগের দপ্তর সম্পাদক রোকন উদ্দিন স্বাক্ষরিত একটি প্রেস বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়।উক্ত প্যাডে একটি ভিত্তিহীন মনগড়া লেখার মাধ্যমে উপজেলা ছাত্রলীগের তিনজন একনিষ্ঠ কর্মীকে সংগঠন

থেকে অব্যাহতি দেওয়ার একটি প্রেস বিজ্ঞপ্তি সামাজিক মাধ্যমে প্রকাশ করা হয়।একজন উপজেলা ছাত্রলীগের দপ্তর সম্পাদক উক্ত উপজেলার কাউকে অব্যহতি দেয়া বাংলাদেশ ছাত্রলীগের গঠনতন্ত্র পরিপন্থী কাজ।এ বিষয়ে আমি উক্ত দপ্তর সম্পাদকের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন,প্রকাশিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিটি তার সাক্ষরিত নয় এবং এই বিষয়ে তিনি কোন সিদ্ধান্ত দেননি।সুতরাং এতে করে এটাই প্রমানিত হয় যে,ছাত্রলীগের মান ক্ষুন করার জন্য কোন এক কুচক্রী মহল তাদের অসৎ উদ্দেশ্য হাসিলের লক্ষ্যে এই কাজটি সম্পন্ন করেছেন।উক্ত বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে যদি উপজেলা ছাত্রলীগের দপ্তর সম্পাদক রোকন উদ্দিনের কোন সম্পৃক্তা থাকে তাহলে তার বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে এবং সবাইকে গত ২৫ শে এপ্রিল প্রকাশিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিটি নিয়ে গুজব না ছড়ানোর জন্য অনুরোধ করা গেলো।

এবিষয় উক্ত ষড়যন্ত্র স্বীকার তিন ছাত্রলীগ নেতার পক্ষে নুরুল ইসলাম বলেন,ছাত্র লীগ দিয়েই আমাদেন রাজনীতে পদার্পণ হয়েছে।সংগঠনের প্রতিটি মিছিল মিটিং থেকে শুরু করে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্তগুলো আমরা সব সময় যথাযত পালন করে এসেছি।করোনাকালীন সময়ে সমগ্র দেশব্যাপী ছাত্রলীগের ন্যায় আমরাও ফ্রণ্ট লাইনে থেকে সংগঠনের নির্দেশে মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছি। আমরা বঙ্গবন্ধুর আদর্শে অনুপ্রানিত সৈনিক।উপজেলা থেকে শুরু করে জেলা নেতৃবৃন্দগন সবাই জানেন যে ছাত্র লীগের জন্য আমাদের কতটা অবদান রয়েছে।সিন্ডিকেট রাজনীতির কবলে পড়ে আমরা আজ হয়রানির স্বীকার হচ্ছি।যারা ব্যাক্তিগত স্বার্থ হাসিলের জন্য আমাদের বিরুদ্ধে এসব করাচ্ছেন আমরা তাদেরকে চিহ্নিত করে অচিরেই তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করব।

এবিষয়ে রাঙ্গামাটি জেলা ছাত্রলীগের সহ-সম্পাদক এবং লংগদু উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা নেছাড় উদ্দিন হৃদয় জানান,
লংগদু উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা নেছার উদ্দিন হৃদয় জানান, তিনি ওই ভিত্তিহীন প্রেস বিজ্ঞপ্তিটি দেখার পর দপ্তর সম্পাদক রোকন উদ্দীনকে ফোন কল করেন এবং তার কাছে এই প্রেস বিজ্ঞপ্তিটি সম্পর্কে জানতে চাইলে রোকন উদ্দীন পুরোপুরি অস্বীকার করে বলেন তিনি এই বিষয়ে অবগত নন এবং উক্ত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে স্বাক্ষরটিও তার নয় বলে জানান. তার সাথে এই ফোনালাপ এর রেকর্ডিং আমার কাছে সংরক্ষিত. এতেই প্রমাণিত হয় যে এটি একটি কুচক্রী মহলের ষড়যন্ত্র. এবং আমি আরো বলতে চাই এই কাজটি সম্পূর্ণ ছাত্রলীগের গঠন্তন্ত্র পরিপন্থী।