সুনামগঞ্জে ধর্ষণ মামলায় ইউপি চেয়ারম্যান সাময়িক বরখাস্ত

0
1

দোয়ারাবাজার প্রতিনিধি: সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজার উপজেলার মান্নারগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো আবু হেনা আজিজকে ধর্ষণ মামলায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২২ এপ্রিল) বিকেলে সুনামগঞ্জ স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালকের কার্যালয় সূত্রে এ তথ্য জানা যায়।

গত ১২ এপ্রিল স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-সচিব মো আবু জাফর রিপন স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে ইউপি চেয়ারম্যানকে সাময়িক বরখাস্তের আদেশ জারি করা হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয় মান্নারগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো আবু হেনা আজিজের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু দমন আইন ২০০০ (সংশোধীত/২০০৩) এর ৩ (১) তৎসহ দণ্ডবিধি ১৮৬০ এর ৩১৩ ধরায় সুনামগঞ্জ সদর

থানায় দায়েরকৃত মামলা নং ১৮ তারিখ ৯-০৮-২০২০ এর অভিযোগ পত্র আদালতে গৃহীত হওয়ায় তার দ্বারা ইউনিয়ন পরিষদের ক্ষমতা প্রয়োগ প্রশাসনিক দৃষ্টিকোণে সমীচীন নয় মর্মে সরকার মনে করে।

সেহেতু সুনামগঞ্জ জেলার দোয়ারাবাজার উপজেলারধীন মান্নারগাঁও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো আবু হেনা আজিজ সংঘটিত অপরাধমূলক কার্যকম পরিষদ সহ জনস্বার্থে পরিপন্থী বিবেচনায় স্থানীয় সরকার ইউনিয়ন

পরিষদ আইন ২০০৯ এর দ্বারা ৩৪(১) অনুযায়ী উল্লেখিত ইউপি চেয়ারম্যানকে তার পদ থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হলো। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সোনিয়া সুলতানা সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন মান্নারগাও ইউপি চেয়ারম্যান

আবু হেনা আজিজকে সাময়িক ভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে তার পরিবর্তে চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করবেন প্যানেল চেয়ারম্যান।

উল্লেখ্য, যুক্তরাজ্য ( লন্ডন ) প্রবাসী ইউপি চেয়ারম্যান আবু হেনা আজিজ স্ত্রী-সন্তানকে যুক্তরাজ্যে রেখে দেশে একা বসবাস করছিলেন। এ অবস্থায় সদর উপজেলার

রঙ্গারচর এলাকার এক নারীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলেন। পরে গত বছরের (৯ আগস্ট) রোববার সকালে ওই নারী চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগে এনে সদর থানায় মামলা করেন।

পরে দুপুরে শহরের পৌর এলাকা থেকে ওই মামলায় ইউপি চেয়ারম্যান মো আবু হেনা আজিজকে গ্রেফতার করে সুনামগঞ্জ সদর মডেল থানা পুলিশ।