রাতের আধারে মোটরবাইক চালককে বেদম মার ও টাকা ছিনতাই

0
3

আরিফুল ইসলাম, রাঙ্গামাটি প্রতিনিধি:

রাঙ্গামাটির বরকল উপজেলার ভুষনছড়া ইউনিয়নের এরাবুনিয়া গ্রামের বাসীন্দা মো মুনসুর হেলাল নামক একজন বাইক ড্রাইভারকে বেদমভাবে মেরে আহত করার অভিযোগ উঠেছে। এ বিষয়ে আহত মুনসুর হেলাল জানান,তিনি একজন মোটর বাইক চালক গতকাল রাত আনুমানিক ১০ টা নাগাদ উক্ত ড্রাইভার এরাবুনিয়া থেকে যাত্রী নিয়ে ভুষনছড়া বাজারে যায় এবং উক্ত যাত্রীকে ভুষনছড়া পৌছে দিয়ে সে পুনরায় এরাবুনিয়া ফেরার পথে ভুষনছড়া মাদ্রাশার সামনে গনি মিয়া তার ভাই মজিবর সহ ৪-৫ জন ব্যাক্তি তার পথরোধ করে দাড়ালে সে মোটর বাইক নিয়ে রাস্তার পাশে পরে যায়।এমতাবস্থায় গনিমিয়া ও তার সহযোগীরা মুনসুর হেলালের কাছে যা আছে তা তাকে দিয়ে দিতে বলে। সে তাদের কথা মত কিছু দিতে অস্বীকার করলে গনি মিয়া ও তার সহযোগীরা লোহার রড ও কাঠের লাঠি দিয়ে তার মাথা সহ শরীরের বিভীন্ন জায়গায় এলোপাথাড়িভাবে পেঠাতে শুরু করে।এসময় তারা উক্ত ড্রাইভারের মোবাইল ও পকেটে থাকা নগদ টাকা ছিনিয়ে নিয়ে যায়।তাকে বেদমভাবে মারতে থাকলে তার চিৎকারে পাশ্ববর্তী বাড়ির মানুৃষজন এসে তাকে উদ্ধার করেন।তিনি লকডাউনের কারনে ভালো চিকিৎসার জন্য বাইরে কোথাও যেতে পারে নাই বলে তিনি জানান।বিষয়টা অত্র এলাকার মেম্বার চেয়ারম্যান থেকে শুরু করে সবাই অবগত আছে বলে তিনি জানান। এ বিষয়ে প্রত্যেক্ষদর্শী হেলাল জানায়,উক্ত ড্রাইভারের চিৎকারে আমরা ছুটে গিয়ে দেখি গনিসহ বাকিরা তাকে মারতেছে।পরবর্তিতে আমরা সেখানে গেলে সে তাকে ফেলে রেখে চলে যায়। এ বিষয়ে ৫ নং ওয়ার্ড মেম্বার আব্দুস ছবুর তালুকদার জানান,বিষয়টা খুবই মর্মান্তিক। অপরাধী যেই হোক তার সঠিক বিচার হওয়া দরকার। ইউপি চেয়ারম্যান মো মামুনর রশীদ জানান,বিষয়টা নিয়ে উক্ত ড্রাইভার আমার ইউনিয়ন পরিষদে লিখিত বিচার দিয়েছে।আমরা তদন্ত সাপেক্ষে অপরাধীদের চিহ্নিত করার প্রচেষ্টা করছি। এ বিষয়ে ভুষনছড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু সাইদ মেম্বার বলেন,উক্ত ড্রাইভারকে বেদমভাবে মারা হয়েছে।এই অমানবিক কাজে জড়িতদের সুষ্ঠবিচার হওয়া জরুরি। উল্লেখ্য, উক্ত গনি মিয়ার নামে একাধীক ফৌজদারি মামলা রয়েছে।সে এক এক সময় এক এক জন ক্ষমতাসীন নেতার ছত্রছায়াতে গিয়ে এলাকায় বিভীন্ন ধরনের অরাজকতা সৃষ্টি ।ইতিমধ্যেই যুবলীগ নেতা দাবীকৃত উক্ত ব্যাক্তিটির বিরুদ্ধে মিলেছে অজস্র অপকর্মের প্রমান।