রাণীনগরে চেয়ারম্যান পদে ৬ জনসহ ২৫ জনের প্রার্থীতা প্রত্যাহার

0
9

রাণীনগর (নওগাঁ) প্রতিনিধিঃ

আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নওগাঁর রাণীনগর উপজেলার ৮ ইউনিয়নে দাখিলকৃত মনোনয়নের মধ্যে চেয়ারম্যান পদে ৬জন,সংরক্ষিত আসনে ১জন ও সাধারণ সদস্য পদে ১৮জনসহ মোট ২৫জন প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন। প্রত্যাহারের শেষ দিন মঙ্গলবার বিকেল ৫টা পর্যন্ত আবেদনের মাধ্যমে এসব প্রার্থীতা প্রত্যার করা হয়। এর আগে ৮টি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে মোট ৫৪জন প্রার্থী মনোনয়ন দাখিল করেন এবং যাচাই-বাছাইয়ে ৫৪জন প্রার্থীকেই বৈধ ঘোষনা করা হয়।
উপজেলা নির্বাচন ও রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয় সুত্র জানায়,কালীগ্রাম ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৭জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এর মধ্যে স্বতন্ত্র প্রার্থী বর্তমান চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম বাবলু মন্ডল প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন। এ ছাড়া সাধারণ সদস্য পদে ৬জন প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন।
একডালা ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৮জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এর মধ্যে স্বতন্ত্র প্রার্থী আবদুল মজিদ আকন্দ,মোস্তাফিজুর রহমান বাবু,শাহিনুর মন্ডল শাহি প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন। এ ছাড়া সাধারণ সদস্য পদে ২জন প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন।
পারইল ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৭জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেন। এর মধ্যে স্বতন্ত্র প্রার্থী ইসাহাক আলী প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন। এ ছাড়া সাধারণ সদস্য পদে ১জন প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন।
বড়গাছা ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে দাখিলকৃত ৪জন প্রার্থীর কেউ মনোনয়ন প্রত্যাহার করেননি। এ ছাড়া সাধারণ সদস্য পদে ৩জন মনোনয়ন প্রত্যাহার করেছেন।
খট্রেম্বর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে দাখিলকৃত ৪জন প্রার্থীর মধ্যে শুধুমাত্র ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ পার্টির হাবিবুল্লা টুটুল প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন। এ ছাড়া সংরক্ষিত আসনে ১জন প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন।
কাশিমপুর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে দাখিলকৃত ৭ প্রার্থীর কেউ প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেননি। এ ছাড়া সাধারণ সদস্য পদে ৩জন প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন।
গোনা ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে দাখিলকৃত ১০জন প্রার্থীর কেউ প্রত্যাহার করেননি। এ ছাড়া সাধারণ সদস্য পদে ১জন প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন।
মিরাট ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে দাখিলকৃত ৭জন প্রার্থীর কেউ প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেননি। এ ছাড়া সাধারণ সদস্য পদে ২জন প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেছেন।
উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা রেজাউল ইসলাম বলেন,বুধবার (২৭অক্টোবর) প্রার্থীদের মাঝে প্রতিক বরাদ্দ দেয়া হবে এবং আগামী ১১ নভেম্বর ভোট গ্রহন অনুষ্ঠিত হবে।