গরীবের ঘরে ঈদ উপহার পৌঁছে দিলেন প্যানেল মেয়র আমজাদ। 

0
2

রাজীব প্রধান, গাজীপুর ঃ-গাজীপুরের শ্রীপুর পৌর এলাকায় ঈদ উপহার পৌঁছে দিলেন প্যানেল মেয়র আমজাদ হোসেন বিএ। কোভিড-১৯ মহামারীর সংক্রমণ ঠেকাতে চলমান লকডাউনের কারণে কর্মহীন হয়ে পড়া অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে পেনেল মেয়র আমজাদ হোসেন বিএ।

গরীবের ঘরে ঈদ উপহার পৌঁছে দিলেন প্যানেল মেয়র আমজাদ। 
গরীবের ঘরে ঈদ উপহার পৌঁছে দিলেন প্যানেল মেয়র আমজাদ।

গাজীপুরের শ্রীপুর পৌর সভার ৯ নং ওয়াডের বারবার নির্বাচিত সফল জনপ্রতিনিধি, প্যানেল মেয়র আমজাদ হোসেন বিএ তার নিজ নির্বাচনী এলাকায় মহামারী করুনার সময় মানুষের দুঃখ কষ্টের কথা চিন্তা করে এবং করুনা সংকট মোকাবিলা করার লক্ষে ধারাবাহিক ভাবে আর্থিক ও ত্রান সহায়তা দিয়ে আসছেন। যার দৃষ্টান্ত বরাবরের মতই।

 

 

এলাকার সাধারন মানুষের কাছে তিনি একজন সাদা মনের মানুষ হিসেবে বিবেচিত। কারন তার কাছে এসে খালি হাতে চলে যাওয়া এমন লোক খুজেপাওয়াই দুষ্কর। সর্ব সাধারনের ভরসা যোগ্য একমাএ ব্যক্তিটিই হলো সফল কমিশনার আমজাদ হোসেন।

 

এবার করুনার দ্বিতীয় ধাপে এসে দেশ যখন আরও ঝুকিপূর্ণ হয়ে পরেছে তখন চলমান জীবনের গতি হয়ে পরেছে অচল প্রায়।

 

মানবিক দিক থেকে এগিয়ে আসা আমজাদ হোসেন গরিব দুঃখি মানুষের পাশে দাড়াতে , তার নিজ এলাকার পরেও পৌর ১ হতে ৯ টি ওয়াড পর্যন্ত বসবাসরত গরিব অসহায় মানুষগুলো সকলেই যেনো এই সহায়তা বা আর্থিক অনুদান পায় সে ব্যাপারে বিশেষ পদক্ষেপ নিয়েছেন।

 

 

করুনা মহামারি সংক্রমনের শুরু থেকে এখন পর্যন্ত তিনি বিভিন্ন ভাবে মানুষের পাশে থেকে সহযোগিতা করছেন।মাহে রমজান মাসে এই অসহায়দের পাশে দারানোটাও একটা নেকির বিষয়।

 

সামনে পবিত্র ঈদুল ফিতরে যাতে হতদরিদ্র মানুষেরা একটু হাসিখুশির মাধ্যমে ঈদ আনন্দ উদযাপন করতে পারে, সেই জন্যই তিনি সল্পপর্যায়ে এই উদ্যোগটি হাতে নেয়।

 

প্রায় দুই হাজার ৫০০ সুবিধা বঞ্জিত পরিবারের মাঝে ত্রাণ হিসেবে খাবার,ও আর্থিক নগদ ৫০০ টাক সহ এবং অন্যান্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য তুলে দেয়া সিন্ধান্ত নেয়।

তারই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার সকাল হতে পৌরসভার প্রতিটি জায়গায় গুরে গুরে ঈদ উপহার বিতরন করেন তিনি। এসময় উপস্থিত ছিলেন, জালাল মাষ্টার, বিশিষ্ট সমাজসেবক রাশেদুল হাসান, বিশিষ্ট সাংবাদিক হোসাইন আলী বাবু, লিটন,রুবেল,তানভীর আহম্মেদ, রাজীব সহ আরও অনেকেই। তিনি নিজের হাতে গরিব মেহনতী কর্মহীন মানুষের মাঝে বিতরন করেন এসব উপহার সামগ্রী।

যার মাঝে ছিল ৫ কেজি চাল, ২ কেজি ভোজ্য তেল, আলু, ডাল, পেঁয়াজ, ছোলা, চিনি, সেমাই, লবণ, গুড়া দুধসহ আরও কয়েকটি প্রয়োজনীয় পণ্য।

 

আমজাদ হোসেন বিএ (প্যানেল মেয়র) এর কাছে এই মহৎ উদ্যোগের বিষয়ে জানতে চাইলে ,তিনি বলেন, সারাবিশ্বের মত বাংলাদেশেও করোনাভাইরাস মহামারী আকারে ছড়িয়ে পড়ছে। এতে সবচেয়ে বেশি কষ্টে দিনযাপন করছেন গরীব ও নিম্ন আয়ের লোকজন। বিশেষ করে মারাত্মক খাদ্য সংকটে ভুগছেন তারা। মহামারী থেকে প্রাণরক্ষায় লকডাউনের কারণে কাজেও যেতে পারছেন না এসকল দুঃস্থ জনগোষ্ঠী।

এমন অবস্থায়, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা সরকারের নির্দেশনায় ও গাজীপুর জেলা আওয়ামিলীগের সাধারণ সম্পাদক ও গাজীপুর ৩ আসনের জননন্দিত জননেতা ইকবাল হোসেন সবুজ এমপি মহোদয়ের নির্দেশনায় এইরকম জনহিতকর কাজের ধারাবিহিকতায় এই অসহায় মানুষদের পাশে দাঁড়িয়েছি।

তাছাড়া একজন মুসলমান হিসেবে পবিত্র রমজান মাসে গরিব খেটে খাওয়া সাধারণ মানুষের পাশে থেকে তাদের সহযোগিতা করাটাই হলো সঠিক সিন্ধান্ত। গরিবকে সাহায্য করলে মহান আল্লাহপাক ও আমাকে সাহায্য করবেন। তাছাড়া রমজান মাসে অনেক ছওয়াবের ভাগিদারও হবো ইনশাআল্লাহ।

প্যানেল মেয়র আমজাদ হোসেন সমাজের উচ্চবিত্তদের উদ্দেশে বলেন, যদি সবাই দেশের এই দূর অবস্থার সময় কাঁদে কাদ মিলিয়ে এক হয়ে অসহায় গরিব মানুষদের জন্য নিস্বার্থে কিছু করে তাহলে হয়তো এই মহামারীর সময় মানুষের যে কষ্ট , সেটা কিছুটা হলেও লাগব হবে।