কাউনিয়ায় জমি নিয়ে বিরোধে চাচাতো ভাই ও ভাতিজার হামলায় গুরুতর আহত ১

0
2

জাকির ইসলাম মিন রংপুর জেলা প্রতিনিধিঃ

কাউনিয়া উপজেলার চড় নাজিরদহ এলাকায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে আনোয়ারুল ইসলাম (৪৫) নামে এক যুবকে উপর সংঘবদ্ধ আপন চাচাতো ভাই ও প্রতিবেশী ভাতিজা হামলা চালিয়ে গুরুতর জখম করেছে। এ ঘটনায় তাকে কাউনিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রেরণ করেছেন কর্তব্যরত চিকিৎসক। স্হানীয় সুত্রে জানা যায়, শুক্রবার রাত ১০ ঘটিকায় সময় উপজেলার হারাগাছ ইউনিয়নের নাজিরদহ এলাকার,,, বাসার সামনে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় আনোয়ারুল ইসলাম বাদী হয়ে কাউনিয়া থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, পূর্ব শত্রুতার জের ধরে প্রতিপক্ষরা আনোয়ারুল ইসলামকে বিভিন্ন সময় প্রাণ নাশের হুমকি দিয়ে আসছিল। এদিকে, শুক্রবার রাত ০৯ ঘটিকায় সময় বকুলতলা বাজারের মোঃ আব্দুল বাকী মিয়ার চায়ের দোকানে প্রতিবেশীর মোঃ আলম মিয়ার কাছে জমি বন্ধক বাবদ ত্রিশ হাজার (৩০০০০) টাকা সঙ্গে নিয়ে আনোয়ার এবং তার চাচা পিতাঃমৃত-আছাব উদ্দিন মোঃ আব্দুল লতিফ মিয়া (৬০) সহ নিম্ন তফসিল বর্নিত জমির পাশ দিয়ে পাকা রাস্তা দিয়ে যাওয়ার সময় দেখিতে পাই যে ১ নং আসামী মোঃ মোঃ আবু বক্কর সিদ্দিকের (৫০) হুকুমে পিতা -মোঃ মনসুর আলী, মোঃ তোফাজ্জল হোসেন(৩৬) পিতাঃ আহম্মদ আলী, মোঃ ফজলুল হক(৩৬) পিতা,নুর ইসলাম, মোঃ শাহ আলম(৫০) পিতা -নুর ইসলাম, মোঃ শফিকুল ইসলাম(৫৮), মোঃ হাসেফুল ইসলাম(২৫) উভয় পিতা- নুর বকস মোঃ রাজিয়ার(২৫)পিতা- মকবুল হোসেন,মোঃ সাবু মিয়া(৩০) পিতা নুরুল ইসলাম, সবুজ মিয়া(২২) পিতা- মৃত সরোয়ারদি গং সর্ব সাং নাজিরদহ, উপজেলা -কাউনিয়া, জেলা- রংপুর, পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে বেআইনী জনতায় দলবদ্ধ হয়ে নিম্ন তফসিল বর্নিত আনোয়ারের জমির উপর বেদখল করার জন্য টিনের চালা তৈরি করিতেছে। তখন আনোয়ার বাধা দিতে গিলে ২ নং আসামীর হুকুমে সকল আসামীরা দেশীয় অস্ত্র দিয়ে আমাকে কিল ঘুশি মেড়ে আমাকে আহত করে আমার সাথে থাকা নগদ ত্রিশ (৩০০০০) হাজার টাকা ও আমার মোবাইল ফোন কেড়ে নেয় এবং পরে আমার দুই হাত পা বেধে আমাকে আগুনে পুড়ে ফেলার হুমকি দেয় এবং গাছের সাথে বেধে রাখে এতে আনোয়ারুল ইসলাম আহত হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। এ সময় তার চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে কে বা কাহারা পুলিশ কে খবর দিলে প্রথমে গ্রাম পুলিশ মনজুর দফাদার এসে নিজে বাদীকে উদ্ধার করে এবং তাৎক্ষাণিক ভাবে পুলিশের টহল গাড়ির উপস্তিতি টের পেয়ে আসামীরা পালিয়ে যায় এবং পুলিশের সহায়তায় আনোয়ারুলকে কাউনিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রেরণ করা হয়। এ ব্যাপারে হারাগাছ থানার বিট অফিসার এস আই সামিউল ইসলাম একটি অভিযোগ পাওয়ার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন এ বিষয়ে মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। নিম্ন তফসিল বর্নিত জমি মৌজাঃ নাজিরদহ, জে এল নং- ০৬ খতিয়ান নং-১৪৯৩, দাগ-৮৩৩৪,৮৩৩৮ জমি ১.২৯ একর খতিয়ান ৮২৬২, দাগ -৮৩৮৩ জমি ১২ একর মোট জমি. ৮৭ একর।