তেল সংগ্রহে ব্যস্ত স্থানীয়রা: স্বাভাবিক হয়নি রেল যোগাযোগ

0
15

সময়ের পাতা:  সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জে তেলবাহী ট্রেনের সাতটি বগি লাইনচ্যুতির ঘটনায় ১৮ ঘণ্টা পরও স্বাভাবিক হয়নি রেল যোগাযোগ। বগি উদ্ধার ও লাইন মেরামতে কাজ করছে রেল কর্তৃপক্ষ।

বৃহস্পতিবার রাতে ওই দুর্ঘটনায় রেল লাইনের আশপাশে ছড়িয়ে পড়া তেল দিনভর সংগ্রহ করেন স্থানীয় মানুষ। ঘটনা তদন্তে ৫ সদস্যের কমিটি করেছে রেলওয়ে। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১২টার দিকে ফেঞ্চুগঞ্জের মাইজগাঁও ও বিয়ালিবাজারের মাঝখানে গুতিগাঁও এলাকায় তেলবাহী ট্রেনের সাতটি বগি লাইনচ্যুত হয়।

 

এতে ট্রেনের ওয়াগনে থাকা জ্বালানি তেল ছড়িয়ে পড়ে আশপাশের এলাকায়। গতকাল রাত থেকেই হাঁড়ি-পাতিল, বালতি, ড্রামসহ বিভিন্ন পাত্র নিয়ে তেল সংগ্রহ করতে শুরু করে স্থানীয়রা। রেলওয়ে থানার ওসি আবদুস সাত্তার জানিয়েছেন, দুর্ঘটনার আশঙ্কায় ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

দুর্ঘটনার কারণ হিসেবে রেল লাইনে স্লিপার না থাকা ও নিয়মিত রক্ষণাবেক্ষণ না করাকেই দুষছেন স্থানীয়রা। তেলবাহী ট্রেনের লাইনচ্যুত বগি উদ্ধারে গতকাল রাত থেকেই উদ্ধার তৎপরতা শুরু করে রেল কর্তৃপক্ষ।

এ দিকে এ ঘটনা তদন্তে রেলওয়ে বিভাগীয় পরিবহন কর্মকর্তা খায়রুল ইসলামকে প্রধান করে ৫ সদস্যর তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। তিনদিনের মধ্যে তাদেরকে তদন্ত প্রতিবেদন দেওয়ার নির্দেশও দেওয়া হয়েছে।