বাঁশঝাড়ে কন্যা সন্তানকে ফেলে পালিয়ে গেলেন মা

0
10

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারী হাসপাতালে সন্তান প্রসব করে বাঁশ ঝাড়ে ফেলে পালিয়ে গেলেন মা।
হাসপাতাল সুত্রে জানা গেছে, গত শুক্রবার মোছাঃ খাদিজা খাতুন (৩৫) নামে এক গর্ভবতী মহিলা সন্তান প্রসব জনিত সমস্যার কারনে হাসপাতালে ভর্তি হয়।
হাসপাতালে ভর্তি রেজিষ্টার সুত্রে জানা গেছে, খাদিজা খাতুন উপজেলা সদর ইউনিয়নের গোপালপুর গ্রামের তহিদুল ইসলামের স্ত্রী।
ভর্তির পর শনিবার সকাল ৮.৩০ মিনিটে একটি কন্যা সন্তান প্রসব করে যার নাম রাখা হয় সুবর্ণা। সন্তান প্রসবের পর হাসপাতাল থেকে কোন ছাড় পত্র না নিয়েই সন্তান সহ পালিয়ে যায় মা। পরে হাসপাতালের পিছনের একটি বাঁশ ঝাড়ে শিশুটির কান্নার আওয়াজ শুনে এলাকার লোকজন শিশুটিকে উদ্ধার করে আবারও হাসপাতালে ভর্তি করায়। শিশুটি বর্তমানে হাসপাতালের গাইনী বিভাগে চিকিৎসাধীন রয়েছে। এলাকাবাসীর ধারণা- কন্যা সন্তান হওয়ায় অথবা অবৈধ সন্তান হওয়ার কারনে হয়তো ফেলে পালিয়ে গেছেন সন্তানের মা।
উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ এএসএম সায়েম জানান, শিশুটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে এবং আমি পুলিশকে অবহিত করেছি। কি কারনে ঐ মা এ ঘটনা ঘটিয়েছেন তা এখনও জানা যায়নি। শিশুটির প্রকৃত পরিচয় পাওয়া না গেলে সরকারী নির্দেশনা মোতাবেক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।