‘আমার দুই দোকানে দুই কোটি টাকা শেষ’

0
23

রাজধানীর গুলশানের ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি) মার্কেটে
(সাবেক ডিসিসি মার্কেট) দুটি দোকান
পুড়ে যাওয়ায় দিশেহারা হয়ে পড়েছেন
নুরুল ইসলাম।মার্কেটে চালু দুটি দোকান
হারিয়ে কখনো কাঁদছেন,আবার কখনো
আক্ষেপে-হতাশায় কপাল চাপড়াচ্ছেন
তিনি।আজ মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১০টায় পুড়ে
যাওয়া ডিএনসিসি মার্কেটের সামনে কথা বলা হয় নুরুল ইসলামের।এ সময় তিনি জানান ডিএনসিসি মার্কেট দোকান মালিক সমিতির সহসভাপতি তিনি। আর মার্কেটের ৪৯ ও ৫৩ নম্বর বেডশিট ও কাপড়ের দোকান দুটি তাঁর।দুটি দোকানের নামই ‘নূর ভ্যারাইটিস’।কাঁদতে কাঁদতে নুরুল ইসলাম জানান, আগুন লেগে দোকান দুটিই পুড়ে গেছে। আর এই দোকানে ছিল দুই কোটি টাকার বেশি
মালামাল।প্রতিবেদকের কাছে কপাল চাপড়াতে চাপড়াতে নুরুল ইসলাম বলেন,‘আমার দুই
দোকানে দুই কোটি টাকা শেষ হয়ে গেছে।আমি পথে বসে গেছি ভাই।নুরুল ইসলাম আরো জানান,এই দোকান দুটিই ছিল তাঁর একমাত্র সম্বল।মাত্র একদিন আগে তিনি দোকান দুটিতে
মালপত্র উঠিয়েছিলেন।কিন্তু আগুনে সব পুড়ে তিনি সর্বস্বান্ত হয়ে গেলেন।নুরুল ইসলাম অভিযোগ করে বলেন, ২টা ২০ মিনিটে মার্কেটে যখন প্রথম আগুন দেখা যায়, তখন সঙ্গে সঙ্গে ফায়ার সার্ভিসে খবর দেওয়া হয়।কিন্তু আনুমানিক ৩টার
দিকে ফায়ার সার্ভিসের মাত্র দুটি গাড়ি আসে। কিন্তু ওই গাড়ি দুটিতে আলোর ব্যবস্থা ছিল না। এই কারণে আগুন নিয়ন্ত্রণের কাজ শুরু হয়নি।
এরপর আগুন যখন দ্রুত ছড়িয়ে যাচ্ছিল,তখন
৩টার পরে ফায়ার সার্ভিসের আরো চারটি গাড়ি এসে আগুন নিয়ন্ত্রণের কাজ শুরু করে।কাঁদতে কাঁদতে নুরুল ইসলাম বলেন সময়মতো ফায়ার সার্ভিস কাজ শুরু করলে এতগুলো দোকান পুড়ত না।জীবনের সব সম্বল ওই দুটি দোকান ছিল, যা চোখের সামনে পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।’