আওয়াজ দিতে চান না পিয়া

0
112

পিয়াতিন বছর আগে ইউনিলিভার বাংলাদেশের একটি পণ্যের শুভেচ্ছাদূত হয়েছিলেন মডেল অভিনেত্রী পিয়া বিপাশা। এটাই ছিল মিডিয়ায় তার প্রথম বড় কোনো কাজ। এরপর মোবাইল পণ্যের শুভেচ্ছাদূত হিসেবেও কাজ করেন। একাধিক ফ্যাশন ম্যাগাজিন, বিলবোর্ড, টিভিসি, নাটক ও চলচ্চিত্রে নিয়মিত  টানা কাজ করছেন এ পর্দাকন্যা। তার অভিনীত প্রথম মুক্তি প্রাপ্তছবির নাম ‘রুদ্র’। সায়েম জাফর ইমামী পরিচালিত এ ছবিতে তার বিপরীতে কাজ করেন এ বি এম সুমন। এরপর রকিবুল আলম রকিবের ‘মনের রাজা’ ছবিতে কাজ করেন। মাঝে কিছুটা সময় বিরতি দিলেও নতুন বছরের শুরুতে ‘জানেমান’ নামে একটি ছবির কাজ শুরু করেন। এ ছবিটি পরিচালনা করছেন নিরঞ্জন বিশ্বাস। এরইমধ্যে এ ছবির বেশকিছু অংশের কাজ শেষ হয়েছে। পিয়া বিপাশা মানবজমিনকে বলেন, অনেকেই কম কাজ করে মিডিয়ায় বেশ আওয়াজ দেয়। আমি ফেসবুকে আমার কোনো সংবাদের শেয়ার দিই না। চুপচাপ নিজের কাজ করছি। আওয়াজ দেয়ার পক্ষে আমি না। ‘জানেমান’ ছবিটি নিয়ে আমি বেশ আশাবাদী। এ ছবিতে আমার সহশিল্পী বাপ্পি চৌধুরী। এবারই প্রথম আমরা একসঙ্গে কাজ করছি। খুব শিগগিরই আউটডোরে এ ছবির গানের দৃশ্যায়ন শুরু হবে। এরইমধ্যে ‘জানেমান’ ছবির কয়েক ধাপের কাজ শেষ হয়েছে। ছবিতে অভিনয়ের পাশাপাশি প্রায়ই দেশের বাইরে ঘুরতে যান পিয়া। এইতো গত সপ্তাহে ব্যাংককে ঘুরতে গিয়েছিলেন তিনি। বললেন, গত বছরের শেষদিকে চার নাটকের কাজে মালয়েশিয়া যাওয়া হয়েছিল। চারটি নাটকে আমার বিপরীতে কাজ করেন মোশাররফ করিম। এবার ব্যাংককে কোনো কাজে না ঘুরতে গিয়েছিলাম। কাজের ফাঁকে ঘুরতে বেশ পছন্দ করি আমি। এরইমধ্যে বেশকিছু নাটকের দৃশ্যধারণের কাজ শেষ করেছেন পিয়া বিপাশা। নাটকগুলো হচ্ছে ‘প্রেমিকার এপিটাফে’, ‘রোদের গাড়ি’, ‘চলতে চলতে হঠাৎ’ ও ‘দুলাল বিরিয়ানি’। এছাড়া মোস্তাফিজুর রহমান মানিকসহ বেশকিছু পরিচালকের ছবিতে কাজ করার কথা রয়েছে তার। সামনেই নতুন আরো কিছু কাজের খবর দেবেন বলে জানিয়েছেন তিনি।