উপাচার্য না থাকায় দেয়ালে পিঠ ঠেকে গেছে হাবিপ্রবির শিক্ষার্থীদের

0
360

 মুহিউদ্দিন নুর, দিনাজপুর প্রতিনিধিঃ   দিনাজপুর হাজী দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক কার্যক্রম। ২০১৬-২০১৭ শিক্ষাবর্ষের অনার্স প্রথম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে।হাবিপ্রবি

এতে সেশন জটের মুখে পড়তে পারে  ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীরা। আর বেতন বন্ধ থাকায় মানবেতর জীবনযাপন করছেন মাস্টার রোলে থাকা প্রায় ২শ’ কর্মচারী। এ অবস্থায়, দ্রুত উপাচার্য নিয়োগের দাবি জানিয়েছেন শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও কর্মচারীরা। উপাচার্য বিহীন খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে চলছে দিনাজপুর হাজী দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। গত ২৭ সেপ্টেম্বর থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শীর্ষ এ পদটি শূন্য থাকায় স্থবির হয়ে পড়েছে প্রশাসনিক কার্যক্রম। ২০১৬-২০১৭ শিক্ষাবর্ষের অনার্স প্রথম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষা ১৮ থেকে ২১ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও তা অনিদৃষ্টকালের জন্য  স্থগিত করা হয়েছে।

এছাড়া, মাস্টার রোলে থাকা কর্মচারীদের বেতন ও শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তি প্রদান বন্ধ থাকায় বিপাকে পড়েছেন তারা। আটকে আছে ফাইনাল ইয়ারের অনেক শিক্ষার্থীদের স্বপ্নের  কান্ট্রি ট্যুর ,অথচ এই ট্যুরের প্রস্তুতি তারা অনেক আগেই নিয়ে রেখেছিলেন , এমতাবস্থায় অনেকেই ট্যুর নিয়ে হতাশাগ্রস্থ হয়ে পড়েছে ।এ ব্যাপারে   প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করে শিক্ষার্থীরা জানায়, ‘যতদ্রুত সম্ভব আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ে বলিষ্ঠ একজন  ব্যক্তিকে যেন ভিসি স্যার হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়।’ এদিকে দ্রুত উপাচার্য নিয়োগ দেয়া না হলে আরো অচলাবস্থা সৃষ্টি হবে বলে আশঙ্কা করছেন শিক্ষকরা।

হাজী দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় রেজিস্টার প্রফেসর ড. মো. সাইফুর রহমান বলেন, ‘মাননীয় প্রধানমন্ত্রী এ বিষয়ে ভালভাবে জানেন। আমরা আশা করি তিনি এ বিষয়ে দ্রুত সমাধান দিবেন।’ ২০১৬-২০১৭ শিক্ষাবর্ষে ৮টি অনুষদে ১ হাজার ৯৫৫টি আসনের বিপরীতে আবেদন করা, ৯৬ হাজার ৪১ জন শিক্ষার্থীর ভর্তি পরীক্ষা ও ভবিষ্যৎ  অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে।