মারুতি ইঞ্জিন দিয়ে হেলিকপ্টার বানিয়ে চমক!

0
48

অনলাইন ডেস্ক: ডি সদাশিবন। প্রথাগত শিক্ষা বলতে ক্লাস টেন। পেশা? একটি ইঞ্জিনিয়ারিং ওয়ার্কশপ চালানো। কিন্তু ছাপোষা এই মধ্যবিত্তের কীর্তিই এখন ফিরছে ভারতের কেরলবাসীর মুখে মুখে। কী করেছেন তিনি? মারুতি ৮০০ গাড়ির ইঞ্জিন দিয়ে তৈরি করে ফেলেছেন আস্ত একটি হেলিকপ্টার।মারুতি ইঞ্জিন

এই ঘটনার নেপথ্যে রয়েছে কাঞ্জিরাপল্লির এক বেসরকারি স্কুল। স্কুলের জন্য সদাশিবনকে একটি মডেল হেলিকপ্টার তৈরি করার নির্দেশ দিয়েছিলেন স্কুলের প্রিন্সিপাল। ৫৪ বছরের লোকটি ভাবলেন, মডেল তৈরি করার বদলে তিনি যদি আসল কপ্টারই তৈরি করে দেন, তাহলে কেমন হয়! যেমনি ভাবা, তেমনি কাজ। মধ্যবিত্তের সাধ্যের মধ্যে যে জিনিসগুলি থাকে তা দিয়েই অসাধ্য সাধন করে দেখালেন এই স্কুল পার না হওয়া লোকটি।

মারতি ৮০০ গাড়ির ইঞ্জিন ছাড়াও সদাশিবনের কপ্টারে ব্যবহৃত হয়েছে রিডাকশন গিয়ার বক্স। ভিতরের ডিজাইন তৈরি লোহা দিয়ে। বাইরে দেওয়া হয়েছে অ্যালুমিনিয়ামের কোটিং। সামনের উইন্ড স্ক্রিনের জন্য ব্যবহার করা হয়েছে অটোরিক্সার সামনে লাগানো কাঁচ। চলতি মাসেই নিজের এই নতুন সৃষ্টিকে আকাশে ওড়ানোর পরিকল্পনা রয়েছে কেরলের বাসিন্দার। এর জন্য প্রয়োজন আরও কিছু সতর্কতামূলক ব্যবস্থা এবং কিছু সরকারি অনুমতি।