নাইকো চুক্তির তথ্য-প্রমাণ আদালতে: নসরুল হামিদ

0
17

সময়ের পাতাঃ বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খরিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বলেছেন, নাইকোর সঙ্গে স্বাক্ষরিত চুক্তিতে দুর্নীতি হয়েছে। আন্তর্জাতিক আদালতে এসব বিষয়ে তথ্য-প্রমাণ দাখিল করা হয়েছে। নাইকো চুক্তি

ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে এক অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন।  প্রতিমন্ত্রী বলেন, বিএনপি-জামায়াত জোট সরকার নাইকোর সঙ্গে অবৈধভাবে চুক্তি করেছিল, সেই চুক্তিপত্রের সব কাগজপত্র এবং গিয়াসউদ্দিন আল মামুনের ভিডিও জবানবন্দি, এফবিআইয়ের রিপোর্ট গত মাসে আন্তর্জাতিক আদালতে জমা দেওয়া হয়েছে। আমরা চাইছে এই চুক্তি বাতিল হোক। এরফলে গ্যাসক্ষেত্র পুড়িয়ে ফেলায় ক্ষতিপূরণ পেতে সুবিদা হবে।

তিনি আরও বলেন, দেশের আদালতেও যে মামলা চলছে সেখানেও উত্থাপন করার জন্য এটর্নি জেনারেলের অফিসে এসব তথ্য প্রমাণ জমা দেওয়া হয়েছে। নাইকো পরিচালিত ছাতকের টেংরাটিলা গ্যাসক্ষেত্রে ২০০৫ সালের ৭ জানুয়ারি ও ২৪ জুন দুই দফা অগ্নিকাণ্ড ঘটে। এরজন্য ৭৪৬ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দাবিতে স্থানীয় আদালতে মামলা করে পেট্রোবাংলা।

এরপর আদলতের নির্দেশনা অনুসারে ক্ষতিপূরণ বিষয়ে সুরাহা না হওয়া পর্যন্ত নাইকোর অন্য গ্যাসক্ষেত্র ফেনী থেকে সরবরাহকৃত গ্যাসের বিপরীতে প্রাপ্য অর্থ আটকে রাখা হয়। পেট্রোবাংলার আটকে রাখা ওই অর্থ আদায়ে ও ক্ষতিপূরণ না দেওয়ার জন্য ২০১০ সালে ইকসিডে দুটো মামলা দায়ের করে নাইকো